,

এমসি কলেজে গণধর্ষণ: আরও ৩ আসামির দায় স্বীকার

নদীয়া ডেস্ক: সিলেটের এমসি কলেজ ছাত্রাবাসে তরুণীকে ধর্ষণের দায় স্বীকার করে তিন আসামি আদালতে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দিয়েছেন।

আজ শনিবার বেলা একটার দিকে পাঁচ‌ দিনের রিমান্ড শেষে কড়া নিরাপত্তার মধ্য দিয়ে তাদের আদালতে হাজির করা হয়।

জবানবন্দি শেষে সন্ধ্যা ছয়টায় তাদের জেলহাজতে পাঠানো হয়।

আসামিরা হলেন— শাহ মাহবুবুর রহমান ওরফে র‌নি, মো. রাজন ও আইনু‌দ্দিন।

সিলেট মহানগর পুলিশের সহকারী কমিশনার (প্রসিকিউশন) অমূল্য কুমার চৌধুরী জানান, আদালতে মামলার অভিযুক্ত শাহ মাহবুব‌ুর রহমান ওরফে র‌নি, মো. রাজন ও আইনু‌দ্দিন ওরফে আইনুল ১৬৪ ধারায় দায় স্বীকার করে জবানবন্দি দিয়েছেন। তাদের জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে।

এদিকে এ মামলায় গ্রেপ্তার তারেকুল ইসলাম ও মাহফুজুর রহমান মাসুমও রিমান্ডে রয়েছেন। এরই মধ্যে সাইফুর রহমান, অর্জুন লস্কর ও রবিউল ইসলাম শুক্রবার আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন।

এমসি কলেজ ছাত্রাবাসে গত ২৫ সেপ্টেম্বর রাতে ধর্ষণের ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় জড়িত অভিযোগে ছাত্রলীগের একটি পক্ষের কর্মী হিসেবে পরিচিত সাইফুর রহমান, তারেকুল ইসলাম, অর্জুন লস্কর, রবিউল ইসলাম, শাহ মো. মাহবুবুর রহমান ওরফে শাহ রনি ও মাহফুজুর রহমান ওরফে মাসুমকে এজাহারভুক্ত আসামি করে মামলা হয়।

মামলার এজাহারের বাইরে আরও দুই-তিনজনকে আসামি করা হয়। এ পর্যন্ত এই মামলায় পুলিশ ও র‍্যাব মোট আটজনকে গ্রেপ্তার করেছে। আটজনকেই রিমান্ডে নেওয়া হয়েছে।


     More News Of This Category